হাদিসের পরিচয়, তাহার প্রকার সহ বিস্তারিত আলোচনা

         

ভুমিকাঃ

হাদিস শরীয়তের অন্যতম একটি উৎস। একটি আদর্শ সমাজ বিনির্মাণে হাদিসের ভূমিকা অনেক। হাদিস হলো আল-কোরআনের জীবন্ত ব্যাখ্যাগ্রন্থ। রাসূল এর কথা-কাজ আদর্শ ও গুণাবলী মানুষের জন্য হেদায়েত শুরুপ। তাই শরীয়তে হাদিসের গুরুত্ব অপরিসীম। যেমন আল্লাহ তায়ালা বলেন-
ما اتاكم الرسول فخذوه وما نهاكم عنه فانتهوا
এতেই বুজা যায় হাদিসও একটি ওহী।নিম্নে হাদিসের প্রকার ও পরিচয় সমুহ ইসলামী শরীয়াহ অনুযায়ী তুলে ধরা হলো।

হাদিস এর আভিধানিক অর্থঃ

حديث শব্দটি اسم তথা বিশেষ্য। শব্দটি একবচন, বহুবচনে احاديث জিনছে صحيح, এর শাব্দিক অর্থ হলো –
* القول
* الوعظ
* القصة
* الخبر
* الجديد

* الخطبة
* কাহিনী
* উপদেশ
* বাণী
* তথ্য ইত্যাদি।

হাদিস এর পারিভাষিক অর্থঃ

☣ মিযানুল আখবার প্রণেতা বলেন-
الحديث هو اعم من ان يكون قول الرسول والصحابه والتابعين وفعله وتقريره
জমহুর মুহাদ্দিসীনের মতে-
الحديث ما اضيف الى النبي ﷺ من قول او فعل او تقرير وكذلك يطلق على قول الصحابي والتابعي وفعلهم
হাফেজ ইবনে হাজার আসকালানী রহ বলেন-
الحديث هو اقوال النبي وافعاله وتقاريره
সাধারণ অর্থে রাসূল সাহাবায়ে কেরাম ও তাবেয়ীগণের বাণী এবং রাসূল এর কাজ ও মৌনসম্মতি কে হাদিস বলে।

রাসূল এর কথা, কাজ ও মৌনসমর্থন, অনুরূপ সাহাবী ও তাবেয়ীগণের কথা, কাজ ও মৌনসমর্থনকেও হাদিস বলে।

সনদের দিক থেকে হাদিসের প্রকারভেদঃ

সনদের প্রতুলতা ও অপ্রতুলতা অনুযায়ী হাদিস প্রথমত দু’প্রকার, নিম্নে এদের পরিচয় দেওয়া হল-
* الاحاد
* المتواتره

المتواترة এর পরিচয়ঃ

المتواتره শব্দটি বাবে تفاعل থেকে اسم فاعل এর একবচন।এটা اسم فاعل মাসদার থেকে এসেছে, এর অর্থ হলো-
* التعاقب
* اتياناحدبعداحد
* تتابع واحد بعد واحد
* ধারাবাহিকতা
* একের পর এক আসা
* একের পর এক অনুগামী হওয়া

আল মানার প্রণেতা বলেন-
المتواتر هو ان يكون رواته في كل عهدا قوما لا يحصى عهدهم ولا يمكن تواطؤهم على الكذب لكسر تهم وعدالتهم وتباين اما كنهم

المتواتر এমন হাদীসকে বলে, যার বর্ণনাকারীদের সংখ্যা এত বেশি যে, তাদের উপর মিথ্যা অপবাদ দেওয়া যায় না।

المتواتر হাদিসের হুকুমঃ

আহলে সুন্নাত ওয়াল জামায়াতের মতে-
* علم البقين তথা অকাট্য জ্ঞানের ফায়দ দেবে।
* يكفر جاحده অর্থাৎ এর অস্বীকারকারীকে কাফের বলা যাবে।
* প্রয়োজনের এর দ্বারা কোরানের আয়াতকে মানসুখ করা যাবে।
* এ হাদিসের উপর আমল করা ওয়াজিব।
মুতাযিলা সম্প্রদায় বলেন-
প্রশান্তিমূলক জ্ঞানের উপকারিতা দিবে।যাতে সত্যোর দিক প্রাধান্য পাবে।
* অস্বীকার কারীকে কাফের বলা যাবে না।

احاد এর পরিচয়ঃ

احاد শব্দটি বহুবচন। এর অর্থ হচ্ছে-
* এক
* অভিন্ন
* নিরবচ্ছিন্ন
যেমন পবিত্র কোরানে বলা হয়েছে- قل هو الله احد

☣ কেউ কেউ বলেন-
الاحاد هو ما لم يجمع شروط المتواتر

পরিভাষায় আহাদ এমন হাদীসকে বলা হয়। যে হাদিসের বর্ণনাকারীগণের সংখ্যা হাদিসে মুতাওয়াতির এর চেয়েও কম।
যে হাদীসের মধ্যে মুতাওয়াতির হাদিস এর শর্তাবলী পাওয়া যায় না।তাকে আহাদ হাদিস বলে।

احاد হাদিস আবার তিন প্রকার-

* مشهور (মাশহুর)
* عزيز (আযিয)
* غريب (গরীব)

مشهور এর পরিচয়ঃ

مشهور শব্দটি شهرة শব্দ থেকে উৎকলিত। এটা اسم مفعول এর সিগাহ।এর অর্থ হলো-
* প্রসিদ্ধ
* ঘোষণাকৃত
* প্রকাশিত।
মুফতি আমিনুল ইহসান বলেন-
ان كان له طرق محصورة باكثر من اثنين ولم تبلغ المتواتر
হাফেজ ইবনে হাজার আশকালানী রহ বলেন-
ماله طرق محصورة باكثر من اثنين
যে হাদীসের বর্ণনাকারীর সংখ্যা দুইয়ের অধিক তবে তা মুতাওয়াতির পর্যায়ে পৌঁছেনি। তাকে মাশহুর হাদিস বলে।

. এই প্রশ্নে যা যা থাকছে

উদাহারনঃ

রাসুল এর বাণী
ان الله لا يقبض العلم انتزاعا ينتزعه بقبض العلماء
উক্ত হাদীসের রাবী প্রত্যেক স্তরে দু-য়ের অধিক

হুকুমঃ

خبر مشهور দ্বারা علم الطمأنينة তথা প্রশান্তি মুলক জ্ঞান অর্জন হয়।এর দ্বারা কিতাবুল্লাহ এর উপর زيادة তথা বৃদ্দি করা জায়েজ আছে।এর অস্বীকার কারীকে কাফের বলা যাবে না। তবে সে বিদায়াত ও ضلالة এর মধ্যে নিমজ্জিত হিসাবে গণ্য হবে।

العزيز এর পরিচয়ঃ

عزيز শব্দটি صفة مشكلة এর সিগাহ।অর্থ হচ্ছে-
*মজবুত বা শক্তিশালী
*দুর্বল বা কম [কেননা হাদিসের মধ্যে আযিয দ্বারা কম বুজানো হয়েছে]
* فوز

ডঃ মাহমুদ আত-তাহহান বলেন-
هو ان لا يقل رواته عن اسنين في جميع طبقات السند
☣ হাফেজ ইবনে হাজার আশকালানী রহ বলেন-
العزيز هو ان لا يرويه اقل من اثنين عن اثنين
আযিয ঐ হাদিসকে বলে, যে হাদিসটি দুই বা ততোধিক রাবী বর্ণনা করেছেন।

উদাহারনঃ

রাসুল বলেন-
لا يؤمن احدكم حتى اكون احب اليه من والده وولده والناس اجمعين

এই হাদীসটি হযরত আনাস রাঃ ও হযরত আবু হুরায়রা রাঃ হতে দুজন করে রাবী বর্ণনা করেছেন।

غريب হাদিসের পরিচয়ঃ

غريب শব্দটি صفة مشكلة এর সিগাহ।এর অর্থ হলো-
* من فرد তথা একাকী
* অপরিচিত
* দুষ্প্রাপ্য
মিজানুল আখবার প্রণেতা বলেন-
فاذا ان نفرض الراوي بالحديث فهو غريب
হাফেজ ইবনে হাজার আশকালানী রহ বলেন-
الغريب هو ما ينفرد بروايته شخص واحدا في اي موضع
যখন কোন হাদীসের বর্ণনাকারী একজন হয়, তখন তাকে গরিব হাদিস বলে।

উদাহরণঃ

النهي عن بيع الولاء এ হাদীসটি শুধু আব্দুল্লাহ ইবনে দিনার হযরত ইবনে ওমর রাঃ হতে বর্ণনা করেন।

হুকুমঃ

এই হাদিস অন্য হাদিসের বিরুদ্ধে না হলে, এর উপর আমল করবে।

উপসংহারঃ

মূলত সনদের কারণেই হাদিসের উপরোল্লিখিত হাদিসের প্রকার গুলো হয়েছে। তাই সনদের ব্যাপারে গভীর জ্ঞান অর্জন করতে হবে । হাদিসের প্রকার সমূহ জানলে হাদীসগুলোর মাঝে পার্থক্য নির্ণয় করা সহজ হবে।

You Might Also Like